‘অক্সিজেন নেই, উনি মন কি বাত করে চলেছেন, ওঁর মনের কথা কে শুনতে চায়?’, ক্ষোভ Mamataর


নিজস্ব প্রতিবেদন- ‘দেশে অক্সিজেন নেই। এদিকে মোদী (Narendra Modi) মন কি বাত করে চলেছেন। ওঁর মনের কথা কে শুনতে চায়? শুধু বাংলা দখল করার লক্ষ্যে মোদী বাংলার ক্ষতি করলেন।’ রবিবার বহরমপুরে (Berhampore) ভার্চুয়াল বৈঠকে এভাবেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে নিশানা করলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। করোনা পরিস্থিতিতে নির্বাচন কমিশনারের (Election Commissioner) নির্দেশ অনুযায়ী বিভিন্ন জেলার অনলাইনেই নির্বাচনী সভা করছেন মমতা। এর আগে আসানসোল, মালদহে সভা করেছেন। আগামী ২৯ এপ্রিল বহরমপুর-সহ মুর্শিদাবাদের ১১টি আসনে ভোট। তার আগে সোমবার, মুর্শিদাবাদের আরও ১১টি আসনে ভোট। রবিবারের বহরমপুরের রবীন্দ্র সদনে তৃণমূলের জেলা সভাপতি আবু তাহের খান ও জেলার অন্যান্য প্রার্থীদের সঙ্গে নিয়ে সভা করেন মমতা।

করোনা (Corona) সংক্রমণ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে আক্রমণ করেন মমতা। তৃণমূল নেত্রীর অভিযোগ, ‘মোদি তো ভাষণ দিতেই ব্যস্ত, ভাষণ দিয়েই চলে গেলেন। এতদিন ভ্যাকসিন (Vaccine) দিলে তো এতটা খারাপ পরিস্থিতি হত না। ৮০টা দেশকে ভ্যাকসিন দিলেন বিনা পয়সায়, আর এখানে কিনতে হচ্ছে।’

আরও পড়ুন: করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু তৃণমূল প্রার্থী কাজল সিংহের

 

পাশাপাশি নির্বাচন কমিশনের নেওয়া পদক্ষেপের তীব্র বিরোধিতাও করেন তিনি। বলেন, ‘সমস্ত এসপি কে বদলেছে। দু’টি লোক এখানে বসে পক্ষপাতদুষ্টতা করে চলেছে। পক্ষপাতমূলক ভোট করিয়েছে। আগামী দিনে আমরা ক্ষমতা এলে এদের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টে (Supreme Court docket)যাব। আমরা মামলা করব নির্বাচন কমিশন যেন কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের আয়না হয়ে না থাকে। দুজন আইনজীবীর সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। সুপ্রিম কোর্টের বিখ্যাত আইনজীবী দুজনেই। তাঁরা বলেছেন, আমাকে সবরকম সাহায্য করবেন। আমরা তো সরকারে আসছিই। কিন্তু তারপরও আমি এই ইস্যু ছাড়ব না। দেখি কতদূর যেতে পারি।‘

রাজ্যে আট দফায় ভোট নিয়েও আবার নির্বাচন কমিশনকে নিশানা করেছেন মমতা। তিনি অভিযোগ করেছেন, বিজেপির (BJP) কথায় চলছে কমিশন। নেত্রীর অভিযোগ, ‘ভোটে টাকা ছড়াচ্ছে বিজেপি, তাও কমিশন কিছু দেখছে না।  সামশেরগঞ্জেও (Samshergunj) কংগ্রেস প্রার্থীর মৃত্যু হয়েছে। ১৩ তারিখ ভোট ফেলেছিল, আমরা প্রতিবাদ করায় ১৬ তারিখ করেছে’।

এদিন খড়দহের তৃণমূল প্রার্থী (TMC Candidate) কাজল সিনহার (Kajal Sinha) মৃত্যুতে দুঃখপ্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী। পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে বলেন, ‘খড়দহে কাজলই জিতবেন।’



Supply hyperlink

Leave a Reply